Govtjob360

Search
Close this search box.

প্রাইমারি শিক্ষক নিয়োগে ইন্টারভিউ দিতে পারবে CTET উত্তীর্ণরাও, হাইকোর্টের নির্দেশ – WB Primary Teachers

 রাজ্যের চাকরি ব্যবস্থা যদিও করুন প্রকৃতির কিন্তু এদিকে চাকরিতে সচ্ছলতা নিয়ে আসতে কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি মাননীয় অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় একের পর এক রায় দিয়ে চলেছেন। আকজ ফের নয়া নির্দেশ দিয়ে চাকরি প্রার্থী মুখে হাসি ফুটিয়েছেন। যদিও এদিকে প্রাইমারি ও হাইস্কুল শিক্ষক নিয়োগ নিয়ে একের পর এক দূর্নীতির খোজ মিলেছে তবুও চাকরি প্রার্থীদের কথা মাথায় রেখে আরও  আরও নয়া নির্দেশ করে চলেছেন। 

রাজ্যের প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ায় এ বার অংশ নিতে পারবেন কেন্দ্রীয় টেট (CTET) উত্তীর্ণরাও। বুধবার এমনই নির্দেশ দিল কলকাতা হাই কোর্ট। এদিন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের নির্দেশ, প্রাথমিকের নিয়োগে কেন্দ্রীয় টেট (সিটেট) উত্তীর্ণরাও আবেদন করার সুযোগ পাবেন। কিন্তু পরবর্তী কালে তাঁদের চাকরির সুপারিশে চূড়ান্ত ছাড়পত্র দেবে হাই কোর্ট। 

এর আগে রাজ্যে প্রাথমিকের নিয়োগ প্রক্রিয়ায় অংশ নিতে পারতেন না সিটেট( CTET) উত্তীর্ণরা। আজ বৃহস্পতিবারের নির্দেশের পরে তাঁরাও এই প্রক্রিয়ায় অংশ নিতে পারবেন। দেশের অধিকাংশ রাজ্যের শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়াতেই কেন্দ্রীয় টেট( CTET) উত্তীর্ণরা অংশ নিতে পারতেন। কিন্তু এ রাজ্যে তারা নিয়োগ প্রক্রিয়ায় যুক্ত হতে পারতেন না। এ নিয়ে আদালতে মামলা করেন এক সিটেট (CTET) উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থী। এদিন মামলার শুনানিতে বৈষম্যের বিষয়টি উল্লেখ করেন মামলাকারীর আইনজীবী ফিরদৌস শামিম। আজ বৃহস্পতিবার উচ্চ আদালতের এই নির্দেশের ফলে রাজ্যের নতুন শিক্ষক নিয়োগের প্রক্রিয়ায় আবেদন করতে পারবেন সিটেট উত্তীর্ণ চাকরিপ্রার্থীরাও।

পশ্চিমবঙ্গের চাকরি প্রার্থীদের জন্য একের পরে এক নয়া সুখবর। ফের পশ্চিমবঙ্গের স্বাস্থ্য দপ্তরে প্রচুর পরিমাণে কর্মী নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে। বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে পশ্চিমবঙ্গের কোন জেলা থেকে চাকরিপ্রার্থীরা এই স্বাস্থ্য কর্মী পদে আবেদন করতে পারবেন। স্বাস্থ্য কর্মী পদে আবেদন করতে অবশ্যই পশ্চিমবঙ্গের বাসিন্দা হতে হবে। করোনার আবহের পরে পশ্চিমবঙ্গে এত বড় নিয়োগ এখনো পর্যন্ত দেখা যায়নি। তো এটি অবশ্যই চাকরি প্রার্থীদের জন্য বিরাট বড় সুসংবাদ। পশ্চিমবঙ্গে প্রায় কয়েক হাজার কর্মী নিয়োগ করতে চলেছে।যে সমস্ত চাকরি প্রার্থীর আবেদন সম্পর্কে আরো বিস্তারিত জানতে চাই, সে সমস্ত চাকরি প্রার্থীরা অবশ্যই শেষ অব্দি পড়বেন। নিচের শূন্যপদ, আবেদন পদ্ধতি সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হবে।

আবেদন পদ্ধতি :

যে সমস্ত চাকরিপ্রার্থীরা উপরোক্ত স্বাস্থ্য দপ্তরের বিভিন্ন শূন্য পদে আবেদন করতে ইচ্ছুক এবং যোগ্য তারা অবশ্যই অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করতে পারবেন। অনলাইনে আবেদন করতে পশ্চিমবঙ্গ স্বাস্থ্য দপ্তরে অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে যেতে হবে এবং সেখানে গিয়ে প্রথমে রেজিস্ট্রেশন এবং তারপর পুরো ফর্ম ফিলাপ করে শেষে ফরমটি প্রিন্ট আউট বের করে আবেদন সম্পন্ন করবেন।

আবেদন ফি :

আবেদন ফি হিসেবে সংরক্ষিত তাদের জন্য কোনরকম আবেদন ফি ধার্য করা হয়নি। তবে সাধারণ ও ওবিসিদের জন্য আবেদন ফি হিসেবে 210 টাকা ধার্য করা হয়েছে যা অনলাইনের মাধ্যমে জমা করতে পারবে। 

নিয়োগ প্রক্রিয়া:

 যে সমস্ত চাকরিপ্রার্থীরা যোগ্য এবং সংশ্লিষ্ট পদে আবেদন করবেন, তাদের নিয়োগ করা হবে একাডেমিক স্কোর এবং ইন্টারভিউর মাধ্যমে। 

যোগ্যতা :

1. আবেদনকারীকে অবশ্যই ভারতীয় নাগরিক হতে হবে।

2. ভারতীয় নার্সিং কাউন্সিল এবং রাজ্য নার্সিং কাউন্সিলের তরফে স্বীকৃত যেকোনো কলেজ থেকে জেনারেল নার্সিং এবং Midwifery course-এ উত্তীর্ণ হতে হবে।

3. আবেদনকারীকে পশ্চিমবঙ্গ নার্সিং থেকে Midwifery Nurse হিসেবে রেজিস্ট্রেশন থাকা প্রয়োজন।

4. বাংলা এবং নেপালি ভাষা লেখার এবং পড়ার দক্ষতা থাকা আবশ্যক।

5. এই শূন্যপদগুলোতে আবেদনের ক্ষেত্রে আবেদনকারী চাকরিপ্রার্থীর বয়স 18 বছর থেকে শুরু করে 39 বছরের মধ্যে হওয়া আবশ্যক। 2022 সালের 1 জানুয়ারি তারিখ অনুসারে চাকরিপ্রার্থীদের বয়সের হিসাব করা হবে। এছাড়াও সরকারি নিয়ম অনুযায়ী চাকরিপ্রার্থীরা। এর পাশাপাশি বিশেষভাবে সক্ষম চাকরিপ্রার্থীরা বয়সের ক্ষেত্রে 6 বছরের ছাড় পেতে চলেছেন।

শূন্যপদের নাম : স্টাফ নার্স 

মোট শূন্যপদ : 3608 টি 

আবেদন সম্পর্কে আরও বিস্তারিত জানতে অথবা অফিসিয়াল নোটিশ ডাউনলোড করতে নিচের দেওয়া লিঙ্ক ক্লিক করবেন।

Official Notice : Click Here

Official Website : Click Here

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

Leave a Comment